GovtBD Services | জাতীয় পরিচয় পত্র, ই পাসপোর্ট এবং জন্ম নিবন্ধন, ভূমি নিয়ে তথ্য ও বিভিন্ন প্রশ্নের উত্তর

GovtBD Services
GovtBD Services

জাতীয় পরিচয় পত্র বা ভোটার আইডি কার্ড হচ্ছে একটি দেশের National ID Card। বাংলাদেশের জাতীয় পরিচয় পত্রকে (Bangladesh National Identity Card) সংক্ষেপে এনআইডি কার্ড বা ভোটার আইডি কার্ড বলা হয়। একজন নাগরিকের জন্য জাতীয় পরিচয় পত্র খুবই প্রয়োজনীয় একটি ডকুমেন্ট।

বাংলাদেশের ই-পাসপোর্ট হলো একটি ইলেকট্রনিক পাসপোর্ট যা পুরোপুরি ডিজিটাল ফরম্যাটে তৈরি হয়েছে। এই পাসপোর্টে অনেক নতুন সুবিধাসমূহ সংযুক্ত করা হয়েছে, যেমন বায়োমেট্রিক তথ্যের অনুমতি, ডিজিটাল স্বাক্ষর ইত্যাদি। ই-পাসপোর্ট বাংলাদেশের প্রধান আইডেন্টিটি ডকুমেন্ট হিসেবে ব্যবহার করা হয়। এটি আন্তর্জাতিক ভ্রমণের জন্য গুরুত্বপূর্ণ। বাংলাদেশের ই-পাসপোর্ট অনুষ্ঠিত প্রক্রিয়ার মাধ্যমে প্রাপ্ত করা যায়।

জন্ম নিবন্ধন এবং পাসপোর্ট দুটি আলাদা আলাদা ডকুমেন্ট হিসেবে ব্যবহৃত হয়। (Services)

জন্ম নিবন্ধন হলো সরকারি নিবন্ধন প্রক্রিয়া যাতে একজন ব্যক্তির জন্ম তারিখ, পিতা-মাতার নাম, ঠিকানা ইত্যাদি সম্পর্কে তথ্য সংরক্ষণ করা হয়। এটি প্রায় সব দেশের সরকার দ্বারা প্রদত্ত একটি ডকুমেন্ট। এটি অনেক সময় যাতে নিবন্ধিত প্রাথমিক ব্যক্তিগত তথ্য সাবমিট করতে হয় পাসপোর্ট অনুমোদনের জন্য ব্যবহৃত হয়।

বাংলাদেশে ডিজিটাল ভূমি সেবা হলো একটি অনলাইন প্রণালী যা মানুষের জমি ও সম্পত্তির সম্পর্কে তথ্য অনলাইনে উপলব্ধ করে। এই সেবার মাধ্যমে মানুষ তার জমির তথ্য যেমন জমির পরিমান, মালিকের নাম, ভূমির ধরণ ইত্যাদি অনলাইনে দেখতে পারেন এবং নতুন জমির ই নামজারি, অনলাইন খতিয়ান জন্য আবেদন করতে পারেন। এটি সরকারি ও রাজস্ব বিভাগের একটি প্রণালী যা মানুষকে ভূমির সম্পত্তি সম্পর্কে সহজে ও সঠিকভাবে তথ্য প্রদান করে।

Govt BD ব্লগে নতুন জাতীয় পরিচয় পত্র বা ভোটার আইডি, ই পাসপোর্ট এবং জন্ম নিবন্ধন, ভূমি সম্পর্কিত সকল সেবার প্রয়োজনীয় তথ্য পাবেন। বাংলাদেশের নাগরিক হিসেবে আপনার নিজের প্রয়োজনেই এসব তথ্য জানা প্রয়োজন।

NID Services বা জাতীয় পরিচয়পত্র সেবাসমূহ

১. নতুন ভোটার আইডি কার্ড করার নিয়ম – ভোটার নিবন্ধন

আপনার বয়স ১৬ হয়ে থাকলে এবং বাংলাদেশি নাগরিক হলে আপনি যে কোন সময় অনলাইনে জাতীয় পরিচয় পত্র পাওয়ার জন্য এবং ভোটার রেজিস্ট্রেশনের জন্য আবেদন করতে পারবেন।

আপনাকে নিচের ধাপগুলো অনুসরণ করতে হবে সহজেই জাতীয় পরিচয় পত্র পেতে:

  • ধাপ ১: আপনার সকল ব্যক্তিগত তথ্য দিয়ে এবং প্রয়োজনীয় কাগজপত্র আপলোড করে অনলাইনে আবেদন জমা দিন;
  • ধাপ ২: আবেদনের প্রিন্ট কপি ও প্রয়োজনীয় কাগজপত্র উপজেলা নির্বাচন অফিসে জমা দিন;
  • ধাপ ৩: আবেদন যাচাই বাছাইয়ের পর আপনার বায়োমেট্রিক তথ্য দিন;
  • ধাপ ৪: অনলাইন থেকে NID Card Download করুন আবেদন চুড়ান্ত অনুমোদনের হওয়ার পর ।

আপনি জাতীয় পরিচয় পত্র পাবেন ১৮ বছর পূর্ণ হওয়ার আগেই, তবে ভোটার তালিকায় আপনার নাম অর্ন্তভুক্ত হবে এবং আপনি ভোট দিতে পারবেন ১৮ বছর পূর্ণ হওয়ার পরেই ।

জন্ম ও মৃত্যু নিবন্ধন

১.১ নতুন জন্ম নিবন্ধনের আবেদন করুন | Birth Certificate Online Application

অনলাইনের মাধ্যমে কিভাবে নতুন Jonmo Nibondhon Apply ফরম পূরণ করবেন এবং কি কি কাগজপত্র প্রয়োজন হবে, জন্ম নিবন্ধন ফরম পূরণ করার নিয়ম ও আবেদন ফি কত এ সম্পর্কে বিস্তারিত জানুন।

জন্ম নিবন্ধন পেতে আপনাকে নিচের ধাপগুলো অনুসরণ করতে হবে:

জন্ম নিবন্ধন করতে কি কি লাগে

  • ধাপ ১: ইপিআই টিকা কার্ড বা হাসপাতালের ছাড়পত্র
  • ধাপ ২: আবেদনকারী পিতা বা মাতার NID কার্ড ও মোবাইল নম্বর
  • ধাপ ৩: হোল্ডিং ট্যাক্সের রশিদ অথবা জমির খাজনা পরিশোধের রশিদ

প্রয়োজনীয় কাগজপত্র কিছুটা আলাদা হবে বাচ্চাদের বয়সভেদে । সাধারনত বয়সভেদে নিচের কাগজপত্র গুলো প্রয়োজন হবে জন্ম নিবন্ধন করার জন্য ।

ই-পাসপোর্ট আবেদন

১.২ Passport Application | ই-পাসপোর্ট আবেদন করার নিয়ম

অনলাইনে E Passport আবেদন করার নিয়ম নিয়ে বিস্তারিত আলোচনা করা হয়েছে। আপনার একটি মোবাইল ফোন কিংবা কম্পিউটার থাকলে কোন ধরনের দালালের সাহায্য ছাড়া অনলাইনে ই পাসপোর্ট এর জন্য আবেদন করে ফেলতে পারবেন।

ই পাসপোর্ট করতে কি কি লাগে

  • ধাপ ১: Online Application Summary;
  • ধাপ ২: Online Registration Form;
  • ধাপ ৩: জাতীয় পরিচয়পত্র অথবা জন্ম নিবন্ধন সনদ (বয়স ২০ এর কম ও এনআইডি না থাকলে);
  • ধাপ ৪: ঠিকানার প্রমাণপত্র/ ইউটিলিটি বিলের কপি (প্রযোজ্য ক্ষেত্রে);
  • ধাপ ৫: পূর্ববর্তী পাসপোর্ট এবং পাসপোর্টের ফটোকপি (রিনিউয়ের জন্য);
  • ধাপ ৬: পিতা ও মাতার জাতীয় পরিচয়পত্রের কপি ( অপ্রাপ্ত বয়স্ক ১৮ বছরের কম);
  • ধাপ ৭: পেশাজীবির ক্ষেত্রে- যেমন ডাক্তার, ইঞ্জিনিয়ার, আইনজীবি এদের ক্ষেত্রে পেশাগত সনদের ফটোকপি বা চাকুরীর আইডি কার্ড;
  • ধাপ ৮: নাগরিক সনদ (প্রযোজ্য ক্ষেত্রে)।

E-Passport এর আবেদন করার ক্ষেত্রে সবথেকে সুবিধা জনক ধাপ হল কাগজপত্রগুলো সত্যায়িত বা ভেরিফাই করার প্রয়োজন হয় না।

স্মার্ট ভূমি সেবা

১.৩ ই নামজারি আবেদন করার নিয়ম | E Namjari Application

নামজারি বা মিউটেশন (www land gov bd) হচ্ছে মালিকানা পরিবর্তন করা সম্পত্তি/জমির । কোন প্রতিষ্ঠান বা ব্যক্তি যদি কোন বৈধ পন্থায় জমির/ভূমি Land BD মালিকানা অর্জন করলে সরকারি রেকর্ড সংশোধন করে তার নামে রেকর্ড আপটুডেট (হালনাগাদ) করাকেই নামজারি eporcha বলা হয়।

উক্ত হিসাব বিবরণী অর্থাৎ খতিয়ানে nid check মালিক বা মালিকগণের নাম, মৌজা নাম ও নম্বর (জেএল নম্বর), জমির দাগ নম্বর, দাগে জমির পরিমাণ, মালিকের জমির প্রাপ্য অংশ ও জমির পরিমাণ ইত্যাদি তথ্য লিপিবদ্ধ থাকে।

প্রয়োজনীয় কাগজপত্র কি কি লাগে

  • ধাপ ১: মূল দলিল এর স্ক্যান কপি
  • ধাপ ২: খতিয়ানের স্ক্যান কপি

প্রথেমেই এই লিংকে যান Land gov bd এবং এখানে নামজারির আবেদন বাটনে ক্লিক করুন ।

Services সংক্রান্ত বিভিন্ন প্রশ্ন ও উত্তর

জাতীয় পরিচয় পত্র কিভাবে পাওয়া যাবে?

আপনার বয়স কমপক্ষে ১৬ বছর হতে হবে জাতীয় পরিচয় পত্র পাওয়ার জন্য । আপনি নির্বাচন কমিশনে অফিসে গিয়ে বা অনলাইনে নতুন ভোটার নিবন্ধন আবেদন করতে হবে। আপনার সকল ব্যক্তিগত তথ্য যাচাই ও বায়োমেট্রিক তথ্য নেয়ার পর অনুমোদন হলে আপনি জাতীয় পরিচয় পত্র পাবেন।

চাকরি জন্য কি বাবা মায়ের জাতীয় পরিচয় লাগে?

প্রয়োজন হয় না, কোন সরকারি/বেসরকারি চাকরীর করার জন্য পিতা-মাতার জাতীয় পরিচয় পত্র প্রয়োজন হয় না।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *